Hesperian Health Guides

ক্যান্সারে র ব্যথা প্রশমি ত করা

ক্যান্সারের ব্যথা ক্যান্সারের কারণে বা এর চিকিৎসার কারণে ঘটতে পারে। উদাহরণস্বরূপ, কেমো থেরাপী নেয়া ব্যক্তিদের মুখে ব্যথা হতে পারে।

ক্যান্সারের অবস্থা খারাপ হতে থাকলে ক্যান্সার থেকে সৃষ্ট ব্যথা খুবই তীব্র হয়ে উঠতে পারে। শক্তিশালী ব্যথানাশক (যেমন মরফিন বা কোডেইন) সবথেকে ভালভাবে ব্যথার উপশম করে, এবং এই ঔষধগুলোর মাত্রা হয়তো ভাল কাজ করার জন্য ক্রমশ অল্প পরিমাণ থেকে বেশী পরিমাণে বাড়াতে হবে।

যেহেতু এগুলো অভ্যাস-সৃষ্টিকারী হতে পারে তাই শক্তিশালী ব্যথার ঔষধ (মাদক) বেশীরভাগ সময়ই সহজলভ্য হয় না। সরকার এবং এমনকি ভাল-চাওয়া স্বাস্থ্যকর্মী মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার এবং মাদকাসক্তি গড়ে ওঠার ভয়ে এগুলোর ব্যবহার সীমিত করে দিতে পারে। এর ফলে ক্যান্সার বা অন্যান্য দীর্ঘ মেয়াদী অসুস্থ্যতায় ভুগছে এমন ব্যক্তিদের জন্য অপ্রয়োজনীয় ভোগান্তির কারণ হয়। এই ঔষধগুলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অত্যাবশ্যকীয় ঔষধের আদর্শ তালিকা লিপিবদ্ধ করা আছে, কিন্তু ক্যান্সার আক্রান্ত ব্যক্তি ও তীব্র ব্যথায় ভুগছে এমন অন্যান্য ব্যক্তিদের জন্য তা সহজলভ্য তা নিশ্চিত করাতে আরও বেশী কিছু করতে হবে। আমাদেরকে এই ঔষধগুলোর বিরুদ্ধে যে কলঙ্ক আছে তার বিরুদ্ধে কাজ করার উচিত, এবং ব্যথা থেকে মুক্ত হওয়া যে একটি মানবাধিকার তার স্বীকার করা উচিত।

ক্যান্সারের ব্যথা কমানোর অন্যান্য উপায় বা ক্যান্সারের অন্যান্য চিকিৎসার মধ্যে আছে আকুপাঙ্কচার, মালিশ এবং শারীরিক চিকিৎসা।

শেষ জীবনের পরিচর্যা

আপনি যেখানেই থাকুন না কেন এবং যত অর্থই খরচ করুন না কেন এমন ক্যান্সার আছে যার কোন নিরাময় নেই। হয়তো ক্যান্সার নিরাময় করবে না কিন্তু ইতিবাচক মনোভাব ক্যান্সার আক্রান্ত একজন ব্যক্তি এবং তার প্রিয়জনদের মনবল জাগিয়ে তুলতে ও তাদের দিনগুলেকে আর সমৃদ্ধ করতে সাহায্য করবে। ভাল মনোভাব বজায় রাখা একজন ব্যক্তিকে সে চিকিৎসা গ্রহণ করুক বা নাই করুক, এক একটি দিন অতিবাহিত করার প্রয়োজনীয় শক্তি অর্জন করায় সাহায্য করতে পারে।

একজন মৃত্যুপথযাত্রী নারীর বিছানার পাশে একটি পরিবার

যে ক্যান্সারগুলো নিরাময় করা যাবে না, সেগুলোর ক্ষেত্রে অবশেষে সেই সময় আসবে যখন মৃত্যু ঘনিয়ে এসেছে তা নিশ্চিত হয়ে যায়। যখন তা ঘটে, তখন ব্যক্তিটি ও তাকে যারা ভালবাসে তাদেরকে কী ঘটছে সে বিষয়ে একমত হতে, এবং প্রস্তুতি নেবার জন্য সাহায্য করুন। তাকে স্মরণ করিয়ে দিনে যে আপনি জীবনে ও মরণে তার পাশে থাকবেন। তার হয়তো ব্যথা হ্রাস করার জন্য ঔষধ, এবং স্বস্তি ও স্বাচ্ছন্দ মৃত্যুর দিকে এগিয়ে যাওয়ায় স্নেহময় যত্নের প্রয়োজন হবে। মৃত্যুবরণ করছে এমন একজনের যত্ন নেয়া সম্পর্কে আরও জানতে অসুস্থ্য ব্যক্তিদের জন্য পরিচর্যা (সংকলিত হচ্ছে) দেখুন।



এই পাতাটি হালনাগাদ করা হয়েছে: ২৩ সেপ্টে ২০১৯